করোনাকে উপেক্ষা করে যে জায়গাগুলির হাতছানি ডাকে সাড়া দিতেই পারেন…

By: Aritra Dasgupta

January 6, 2022

Share

করোনা অতিমারী পেরিয়ে সবে আশার আলো দেখতে শুরু করেছে বিশ্ব। এর মধ্যেই আবার নতুন করে থাবা বসাতে শুরু করেছে কোভিডের নতুন ভ্যারিয়ান্ত ওমিক্রন। বিশ্বের একাধিক পর্যটন কেন্দ্র দীর্ঘদিন বন্ধ থাকার পর খুললেও ওমিক্রন আতঙ্কে বেশির ভাগটাই ফের বন্ধ হওয়ার মুখে। সংক্রমণ রুখতে পুনরায় একাধিক দেশে লাগু হয়েছে কঠোর কোভিড বিধি। তবুও ভ্রমনই যদি হয় উদ্দেশ্য এবং সুরক্ষা ও স্বাস্থ্য বিধি হয় প্রাথমিক শর্ত, বিশ্বের এই জায়গাগুলিতে অনায়াসেই ঘুরে আসতে পারেন আপনি। সম্প্রতি সেন্টারস ফর ডিসিজ কন্ট্রোল অ্যান্ড প্রিভেনশান করোনা পরিস্থিতিতে পৃথিবীর বিভিন্ন দেশকে কোভিডে ভ্রমণের ঝুঁকির ভিত্তিতে কয়েকটি ভাগে ভাগ করেছে। তার মধ্যে লেভেল ১ এবং লেভেল ২-এ থাকা দেশগুলিই ভ্রমণ স্থান হিসেবে অপেক্ষাকৃত সুরক্ষিত। করোনা বিধি মেনে এই জায়গাগুলি হতেই পারে আপনার আগামী গন্তব্য-

সংযুক্ত আরব আমিরশাহী

সংযুক্ত আরব আমিরশাহীতে রয়েছে দুবাই, আবুধাবির মত কিছু আকর্ষণীয় পর্যটক স্থান। প্রতি বছরই বিশ্বের বহু মানুষ দুবাই ও আবুধাবি ভ্রমণে আসেন। এমনকি সিডিসির গাইডলাইন অনুযায়ী করোনা সংক্রমণের আতঙ্ক এই দেশে অনেকটাই কম। এটি সিডিসির দেওয়া আন্তর্জাতিক ভ্রমণবিধি অনুযায়ী লেভেল-১ এ রয়েছে। সিডিসির মতে আগামীদিনেও এই দেশগুলিতে কোভিডের ঝুঁকি অনেকটাই কম। ২০২২ এ করোনা বিধি মেনে ঘুরে আসতেই পারেন আরব আমিরশাহী।

 ব্রিটিশ ভার্জিন আইল্যান্ড

বছরের শুরুতে আপনার আর এক গন্তব্য হতে পারে ব্রিটিশ ভার্জিন আইল্যান্ড। উত্তর আটলান্টিক এবং ক্যারাবিয়ান সাগরের ঠিক মাঝে উপস্থিত এই দ্বীপপুঞ্জে করোনার ভয় অনেকটাই কম।সম্প্রতি আন্তর্জাতিক পর্যটকদের কথা ভেবে প্রশাসনের পক্ষ থেকে কোভিড বিধি নিষেধ কিছুটা লঘু করা হয়েছে। যদি ও এই দ্বীপে ভ্রমণের জন্য কোভিডের দুটি টিকা নেওয়া আবশ্যক।

জামাইকা

ক্যারিবিয়ান সাগরে অবস্থিত জামাইকা ও পর্যটকদের নতুন ঠিকানা হতে পারে। সিডিসির কো ভি ড বিধি অনুযায়ী জামাইকা লেভেল ২ এর অন্তর্গত। তবু ও যেসব পর্যটক নিরিবিলিতে দু দণ্ড সময় কাটাতে চান তারা খানিক ঝুঁকি নিয়ে বেরিয়ে আসেতেই পারেন এই সমুদ্র শহরে।এছাড়া ও রাজধানী কিংস্টনে রয়েছে বিখ্যাত গায়ক বব মারলের নামাঙ্কিত একটি মিউজিয়াম যা পর্যটকদের জন্য কুলে দেওয়া হয়েছে। কিন্তু এখানে ভ্রমণের ক্ষেত্রে ও মানতে হবে কঠোর সুরক্ষা বিধি।

বাহামা দ্বীপপুঞ্জ

সূর্যের মেদুর আলো, জলকেলি এবং বালিতে বসে সমুদ্র দর্শন এই তিনের সমন্বয় যদি আপনি ছান তাহলে আপনাকে যেতেই হবে বাহামা দ্বীপে। সেখানকার সমুদ্র আপনাকে হাতছানি দেবে। করোনা পরিস্থিতিতে এই নিরালা দ্বীপ ডেস্টিনেশান হিসেবে অনেকটাই সুরক্ষিত। কিন্তু এখানে আসতে গেলে আপনাকে মানতে হবে আন্তর্জাতিক কোভিড বিধি। অবশ্যই কোভিডের দু’টি টিকা নিতে হবে।

ফিজি দ্বীপপুঞ্জ

একাধিক সুন্দর দ্বীপে ঘেরা দক্ষিণ প্রশান্ত মহাসাগরে অবস্থিত ফিজি ও হতে পারে আপনার অন্যতম সেরা পছন্দ। পর্যটকদের সুরক্ষা বিধির কথা মাথায় রেখে এই দেশে ঢোকার আগে আপনাকে করাতে হবে কো ভি ড পরীক্ষা। এছাড়া ও করোনার দুটি টিকা নেওয়া বাধ্যতামূলক। সিডিসির কো ভি ড মূল্যায়ন অনুযায়ী এই দেশে করোনা সংক্রমণের ঝুঁকি অনেকটাই কম তাই নিশ্চিন্তে ব্যাগ গুছিয়ে বেরিয়ে পরতেই পারেন ফিজির উদ্দেশ্যে

নিউজিল্যান্ড

২০২০ তে করোনা অতিমারির সময়ে আন্তর্জাতিক ভ্রমণে নিষেধাজ্ঞা জারি করেছিল নিউজিল্যান্ড। এমনকি দেশের বিভিন্ন পর্যটন কেন্দ্র ও বন্ধ করে দিয়েছিল কিউয়ি সরকার। প্রায় দু’বছর বন্ধ থাকার পর অবশেষে ভ্রমণ পিপাসু মানুষদের জন্য খুলতে চলেছে নিউজিল্যান্ডের দরজা। দক্ষিণ পশ্চিম প্রশান্ত মহাসাগরে অবস্থিত এই দ্বীপ রাষ্ট্রে ও ভ্রমণের জন্য মানতে হবে কঠোর বিধি নিষেধ।  টিকার দুটি ডোজ নিলেই পর্যটকরা প্রবেশাধিকার পাবেন এখানে।

গ্রেনাডা

ওমিক্রন আতঙ্কের মধ্যেই ঘুরে আসতে পারেন গ্রেনাডা দ্বীপে। ক্যারিবিয়ান সাগরের বুকে ভাসমান এই দ্বীপে করোনার ভয় অনেক খানি কম। যদি ও সরকারের পক্ষ থেকে  পর্যটকদের কঠোর ভাবে কোভিড বিধি নিষেধ মেনে চলার অনুরোধ করা হয়েছে। গ্রেনাডার অন্যতম আকর্ষণ স্পাইস আইল্যান্ড খুলে দেওয়া হয়েছে ট্যুরিস্টদের জন্য।

 

স্পাইস আইল্যান্ড যেতে গেলে পর্যটকদের ভ্যাকসিনের দুটি ডোজ নেওয়ার পাশাপাশি কোভিড পরীক্ষা ও কোয়ারেন্টিনের নিয়ম মেনে প্রবেশ করতে হবে।

More Articles