মিতালির ২৩ বছরের কেরিয়ার চ্যালেঞ্জ জানাতে পারে যে কোনও পুরুষ ক্রিকেটারকে

 

"সমস্ত যাত্রার মতো, এটিও অবশ্যই একদিন না একদিন শেষ হত। তেমনটাই হল। আমি অবসর নিলাম ক্রিকেট থেকে।" গতকাল নিজের ট্যুইটার অ্যাকাউন্টে লিখেছেন মিতালি। ভারতের মহিলা ক্রিকেটের ইতিহাসে শেষ হল এক সোনালী অধ্যায়। শেষ বিশ্বকাপ অভিযান ভালো যায়নি ভারতের, তাই অনেকেই আশা করেছিলেন এবার হয়তো বিদায় নিতে পারেন মিতালি। কয়েক মাস যেতেই তাঁর এই ঘোষণা। সব ধরনের ক্রিকেট থেকে বিদায় নিলেন ভারতের মহিলা ক্রিকেটের অধিনায়ক মিতালি রাজ।

৩৯ বছর বয়সি মিতালি মহিলাদের ওয়ান ডে ক্রিকেটের সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহক। এই ফরম্যাটে তিনি মোট ৭৮০৫ রান করেছেন। ৮৯টি টি-টোয়েন্টি আন্তর্জাতিক ম্যাচে মিতালির রানের পরিমাণ ২৩৬৪ এবং ১২ টেস্ট ম্যাচে ৬৯৯ রান রয়েছে তাঁর ঝুলিতে। ভারতের মহিলা ক্রিকেট নিয়ে মাতামাতি শুরুর অন্যতম কারণ তিনি। কারণ মিতালি রাজের অধীনেই ভারত ২০১৭ সালে মহিলাদের ওয়ান ডে বিশ্বকাপের ফাইনালে পৌঁছেছিল।

১৯৯৯ সালের জুন মাসে আয়ারল্যান্ডের বিরুদ্ধে ভারতীয় ক্রিকেটে অভিষেক ঘটে মিতালি রাজের। দীর্ঘ ২৩ বছরের ক্রিকেটজীবন পরবর্তী প্রজন্মকে সাহস জুগিয়েছে নতুন করে স্বপ্ন দেখার। বিশ্বকাপে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে ভারতের হয়ে শেষ ম্যাচ খেলেছিলেন মিতালি। ভারত ওই ম্যাচে হেরে বিশ্বকাপে গ্রুপ পর্ব থেকেই বিদায় নেয়। কিন্তু ওই ম্যাচেও মিতালি ৮৪ বলে ৬৮ রান করেছিলেন।

আরও পড়ুন: চাকদহ থেকে মহিলা ক্রিকেট দলের অধিনায়ক, ঝুলন গোস্বামী অনুপ্রেরণার অন্য নাম

ট্যুইটারে এক আবেগঘন পোস্টে মিতালি রাজ লিখেছেন, "ছোটবেলাতেই লক্ষ্য স্থির করে নিয়েছিলাম যে ভারতের হয়ে নীল জার্সি পরব। দেশের হয়ে প্রতিনিধিত্ব করা ছিল আমার কাছে সবচেয়ে সম্মানের। এই যাত্রার বেশিরভাগ সময়ই ভালোভাবে কাটিয়েছি। খারাপ অভিজ্ঞতা রয়েছে খুব কম। প্রতিটি অভিজ্ঞতাই আমাকে নতুন কিছু শিখিয়েছে। গত ২৩ বছর আমার জীবনের সবচেয়ে সুন্দর, পরিপূর্ণ এবং উপভোগ্য বছর ছিল।" তিনি আরও লিখেছেন, "দেশকে জেতাতে সবসময়ই আমি আমার সেরাটা দিয়েছি। ভারতকে প্রতিনধিত্ব করার যে সুযোগ আমাকে দেওয়া হয়েছে, তা আমার হৃদয়ের খুব কাছের।"

Mithali Raj's statement

তবে ব্যাট তুলে রাখলেও যে ক্রিকেটের সঙ্গে তাঁর সম্পর্ক ছিন্ন হচ্ছে না, সেকথাও জানিয়েছেন মিতালি।তিনি কোনও না কোনওভাবে খেলাটার সঙ্গে যুক্ত থাকতে চান। ফলে ভবিষ্যতে তাঁর কোচ হওয়ার সম্ভাবনাও উড়িয়ে দেওয়া যাচ্ছে না। মিতালি জানিয়েছেন, "এত দিন ধরে দলকে নেতৃত্ব দেওয়ার কারণে ব্যক্তি হিসেবেও তাঁর অনেক পরিবর্তন হয়েছে। ধন্যবাদ জানিয়েছেন ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডকেও।"

১০ বছর বয়সে ক্রিকেটে হাতেখড়ি হয় মিতালির। বাবা দোরাই রাজ ছিলেন ভারতীয় বিমানবাহিনীর অফিসার। মূলত,‌ বাবার ইচ্ছেতেই ক্রিকেট খেলা শুরু করেন। মাত্র ১৪ বছর বয়সেই জাতীয় দলে যোগ দেওয়ার সুযোগ এসেছিল তাঁর সামনে। ১৯৯৭ সালে মহিলা ক্রিকেট বিশ্বকাপ দলে তাঁকে নেওয়ার কথা হয়েছিল। তবে শেষ মুহূর্তে বাদ পড়েন মিতালি। প্রথম আন্তর্জাতিক ম্যাচেই শতরান করেছিলেন। ২০০১-'০২ মরশুমে দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে টেস্টে অভিষেক হয় তাঁর। তৃতীয় টেস্টে মাত্র ১৯ বছর বয়সে দ্বি-শতরান করেন। ২০০৫ সালে তাঁর নেতৃত্বে মহিলা বিশ্বকাপের ফাইনালে ওঠে ভারত। সেখানে হেরে যায় অস্ট্রেলিয়ার কাছে। তাঁর ঝুলিতে একাধিক রেকর্ড রয়েছে। তাঁর রেকর্ডের মধ্যে গুরুত্বপূর্ণ হলো:

১) একদিনের আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে মিতালি রাজ সর্বোচ্চ রানের অধিকারী। মোট ৭৮০৫ রান রয়েছে তাঁর ঝুলিতে। ইংল্যান্ডের শার্লট এডওয়ার্ডস ১৯১ ম্যাচে ৫৯৯২ রান করে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছেন।

২) একজন মহিলা ক্রিকেটার হিসেবে সর্বাধিক একদিনের ম্যাচ খেলেছেন মিতালি। দীর্ঘ ২৩ বছরের ক্রিকেটজীবনে ২৩২টি একদিনের আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলেছেন ভারতের হয়ে।

৩) ১৬ বছর বয়সে অভিষেক ম্যাচেই ১১৪ রান করে অপরাজিত ছিলেন তিনি। একদিনের ক্রিকেটে সর্বকনিষ্ঠ মহিলা ক্রিকেটার হিসেবে সেঞ্চুরি করেন মিতালি।

৪) ভারতীয় মহিলা ক্রিকেটার হিসেবে মিতালিই প্রথম টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটজীবনে দু'টি সেঞ্চুরি করেছিলেন।

৫) ভারতীয় মহিলা ক্রিকেটারদের মধ্যে টি-টোয়েন্টিতে সর্বাধিক রানও মিতালির ঝুলিতে। ৮৯টি টি-টোয়েন্টি ম্যাচে ২৩৬৪ রান করেছেন।

৬) মাত্র ২২ বছর বয়সেই ভারতীয় মহিলা টেস্ট ক্রিকেটের অধিনায়ক হন মিতালি। বিশ্ব মহিলা ক্রিকেটের ইতিহাসে সবচেয়ে কমবয়সি অধিনায়ক হিসেবে মিতালি তৃতীয়। অধিনায়ক হিসেবে প্রথম টেস্টে ইংল্যান্ডের বিরূদ্ধে ভারত ড্র করে।

৭) সবচেয়ে কমবয়সি মহিলা ক্রিকেটার হিসেবে টেস্টে দ্বিশতরানের ইনিংস খেলেন এই মহিলা ক্রিকেটার। মিতালি মাত্র ১৯ বছর বয়সেই এই নজির গড়েন।

৮) একমাত্র ভারতীয় ক্রিকেটার মিতালি, যিনি ৪টি বিশ্বকাপে নেতৃত্ব দিয়েছেন ও তার মধ্যে ২বার ফাইনালে পৌঁছেছেন

৯) একমাত্র ভারতীয় ক্রিকেটার হিসেবে ওয়ান ডে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে টানা ৭টি ম্যাচে অর্ধশতরান করেছেন মিতালি।

১০) ২০২১ সালের মার্চ মাসে দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে ওয়ান ডে ম্যাচে বিশ্বের দ্বিতীয় মহিলা ক্রিকেটার হিসেবে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ১০,০০০ রান পূর্ণ করেন মিতালি রাজ।

শুধু ক্রিকেট নয়, ভরতনাট্যমেরও তালিম রয়েছে তাঁর।ভালোবাসেন বই পড়তেও। মিতালিকে নিয়ে তৈরি বায়োপিক ‘শাবাশ মিঠু’ মুক্তি পাবে ১৫ জুলাই। এই ছবিতে মিতালির ভূমিকায় দেখা যাবে তাপসী পান্নুকে। পরিচালনা করেছেন সৃজিত মুখোপাধ্যায়।

 

More Articles

;