শরীর সুস্থ রাখতে গরমে কী পরবেন, কী পরবেন না

অসহ্য গরমের হাত থেকে সামান্য স্বস্তি মিলেছে ঝড় বৃষ্টির সৌজন্যে। কিন্তু এখনও গরম শেষ হতে ঢের দেরি।এর মধ্যে প্রতিদিন নানা কাজে রোদের মধ্যে বেরোনোর কথা শুনলেই গায়ে জ্বর আসে।তবে যাঁদের অফিস যাওয়ার জন্য বাড়ি থেকে বেরোতে হয় তাঁদের কাছে বিকল্প পথও নেই। এ অবস্থায় গরমে ঘেমে নেয়ে গায়ে জামাকাপড় রাখাই দুষ্কর মনে হয়। তবে কি কোনো উপায়ই নেই! গরমের হাসফাসানি থেকে বাঁচতে এমন পোশাক বেছে নেওয়াই বুদ্ধিমানের যা স্বস্তি দেবে অনেকক্ষণ পড়ে থাকার পরেও।সাথে স্টাইলের কথাও ভুললে চলবে না। সুন্দর মানানসই পোশাক বেছে নিন যাতে আরামও বজায় থাকে এবং সকলের কাছে নিজেকে আকর্ষণীয় করে তোলা যায়। শুধু মাথায় রাখুন এই টিপসগুলি -

১. গরমকালে আরামদায়ক পোশাকের কথা উঠলেই মাথায় আসে সুতির পোশাকের কথা। তাই গরমের পোশাকে সুতির ছোঁয়া অবশ্যই রাখুন। হালকা সুতির পোশাক গায়ের ঘাম সহজেই শুষে নেয় ফলে শরীর ঠান্ডা থাকে। আজকাল সবরকম স্টাইলের সুতির পোশাক বাজারে পাওয়া যায়। মেয়েদের ক্ষেত্রে এমব্রয়ডারি কাজ করা সুতির কুর্তি, টপ ও টিউনিকের সাথে পছন্দমত স্ট্রেট প্যান্ট,কুলেটস বা প্লাজো ফ্যাশনে যথেষ্ট ইন। মুম্বইয়ের গরমে বলিউড তারকা সারা আলি খান থেকে শুরু করে দীপিকা পাড়ুকোনের পরনে ঢিলেঢালা সুতির পোশাক বুঝিয়ে দেয় এই গরমে সুতি ছাড়া গতি নেই।

ছেলেরদের ক্ষেত্রে গরম বা শীতে পোশাকের খুব বেশি বিকল্প নেই। তবে সুতির হাফহাতা শার্ট বা কুর্তার মত পোশাক গরমে স্বস্তি দেবে।

২. সুতির পোশাক বেছে নেওয়ার পাশাপাশি অবশ্যই হালকা রঙের পোশাক পরুন। এক্ষেত্রে বেশিরভাগ মানুষই সাদা রঙের পোশাক বেছে নেন। তবে লিনেন, হালকা নীল, গোলাপি, আকাশি, ধূসর রঙের পোশাক শরীরের স্বস্তির পাশাপাশি চোখেরও শান্তি দেবে। হালকা রঙের মাল্টি কালারের পোশাকও সুন্দর দেখায় গরমকালে।

৩. অতিরিক্ত চাপা জামাকাপড় গরমকালে অস্বস্তি আরও বাড়িয়ে দেয়। তাই ঢিলেঢালা পোশাক বেছে নেওয়ার কথা চিকিৎসক থেকে ফ্যাশন ডিজাইনার সকলেই বলে থাকেন। এক্ষেত্রে গরমের সময় ওভারসাইজ টপ বা টি-শার্ট বেছে নিতে পারেন বাইরে বেরোনোর সময়। ফুলহাতা বা থ্রি কোয়ার্টার জামার বদলে ছোটহাত বা স্লিভলেস টপও পড়তে পারেন। জিন্স এড়িয়ে যেতে চাইলে এই সময় স্কার্ট খুবই ভাল বিকল্প। অফিস বা বন্ধুদের সাথে আড্ডায় পেন্সিল স্কার্ট ও টপ গরমে স্বস্তি দেবে সাথে স্টাইলও বজায় থাকবে। আজকাল ফ্লেয়ারড জিন্সও ফ্যাশনে রয়েছে। এধরনের জিন্সের সাথে শার্ট বা টিশার্ট গলিয়ে নিলেই ক্যাজুয়াল এবং অফিস লুক দুক্ষেত্রেই দারুণ দেখায়।

 

আরও পড়ুন-গরমে হাসফাঁস, দিঘা-পুরী নয়, দু’দণ্ড শান্তি দেবে বরফে ঢাকা চারধাম

 

৪. গরমকালে অনুষ্ঠান বাড়ি যাওয়ার কথা উঠলেই ভয় ধরে যায়। কিন্তু একটু বুদ্ধি করে বেছে নিতে পারলেই জমকালো সাজের সাথেই আরামদায়ক পোশাক পরা সম্ভব। অনুষ্ঠান বাড়িতে ভারী পোশাকের বদলে সুতির জামদানি, পাতলা লিনেন কিংবা এমব্রয়ডারি করা মসলিন কাপড় বেছে নিন। এক্ষেত্রে খাদির শাড়িও পড়তে পারেন। শাড়ি ছাড়া অন্য পোশাক পড়তে চাইলে স্লিভলেস কুর্তি ও প্লাজো গরমের সময়েও দারুণ লুক দেবে।

৫. গরমকালে কলেজ যেতে বা বাইরে বেরোনোর জন্য ওয়ান পিস পড়তে পারেন। ফ্লোরাল প্রিন্ট অথবা জ্যামিতিক প্যাটার্নের ম্যাক্সি ড্রেস, মিডি ড্রেস গরমকালে পড়ে খুব শান্তি। ছাপার বিভিন্নতার পাশাপাশি স্টাইলের রকমফের রয়েছে ম্যাক্সি ড্রেসের ক্ষেত্রে। স্লিট কাট বা অফ শোল্ডার ওয়ান পিসও বেছে নিতে পারেন এই গরমে।

৬. গরমের ফ্যাশানের সাথে বিভিন্নধরনের কাফতান পোশাক খুবই ভালো যায়।কাফতান কুর্তি ও স্ট্রেট প্যান্ট গরমে পড়ে খুব আরাম লাগে।এক্ষেত্রে বেল্ট দিয়ে বা বেল্ট ছাড়াই কাফতান স্টাইলের ওয়ান পিস ও টপ বেছে নিতে পারেন।

৭. কার্গো জিন্স আজকাল ফ্যাশানে খুবই ইন আবার গরমকালে পড়েও শান্তি পাওয়া যায়।তাই এই সময় ট্যাঙ্ক টপ বা ক্রপ টপের সাথে কার্গো জিন্সও পড়তে পারেন স্টাইলের জন্য।

৮. মহিলাদের জন্য সুতির শার্ট ড্রেস বা জাম্পস্যুটও গরমের পোশাক হিসেবে বেছে নেওয়ার পরামর্শ দেন অনেক ফ্যাশান ডিজাইনার। এ ধরনের পোশাক ভ্যাপসা গরমে স্বস্তির পাশাপাশি ক্যাজুয়াল লুকের জন্য একদম পারফেক্ট। ছেলেরা শর্টস পড়তে পারেন। রঙ নিয়ে এক্সপেরিমেন্ট করতে একেবারেই ভয় পাবেন না।গরমে বন্ধুদের সাথে ঘুরতে যেতে বা ক্যাজুয়াল আউটিং সবেতেই মেতে উঠতে পারেন শর্টসে।

৯. সূর্যের প্রচন্ড তাপে ট্যান পরার ভয়ে অনেক মেয়েরাই স্লিভলেস পড়তে চান না গরমে। এক্ষেত্রে পাতলা সামার জ্যাকেট বা শ্রাগ কিন্তু আপনাকে একদম অন্যরকমের একটা লুক দেবে।

১০. গরম হোক বা শীত আউটফিটের সাথে পছন্দসই জুতো না পড়লে পুরো লুকটাই মাঠে মারা গেল। কিন্তু আরামের সাথে আপস করা যাবে না। এক্ষেত্রে প্ল্যাটফর্ম হিল, স্লিপারস এবং সাদা স্নিকার - এই তিন ধরনের জুতো সব পোশাকের সাথে মানিয়ে যায়। তাই গরমে নিজের লুককে সম্পূর্ণ রূপ দিতে এগুলি থাকুক আপনার কালেকশনে।

 

More Articles

;