পাতে এই খাবার থাকলেই ক্যানসারকে চিরবিদায়! বলছে গবেষণা

 

বিশ্বজুড়ে ক্যানসারে আক্রান্তর সংখ্যা ক্রমশ বৃদ্ধি পাচ্ছে। ২০১৮ সালে দেশে ক্যানসার-আক্রান্তর সংখ্যা ছিল ২৫ লক্ষ। ২০২০ সালে তা বেড়ে দাঁড়িয়েছিল প্রায় ৪৯ লক্ষ। বর্তমানে গোটা বিশ্বে ক্যানসার-আক্রান্তর সংখ্যা প্রায় ১ কোটি ৮১ লক্ষ। ‘ইন্ডিয়ান কাউন্সিল অফ মেডিক্যাল রিসার্চ’-এর তথ্য থেকে জানা যায়, প্রতিদিন প্রায় ১৩০০ জন ক্যানসারে আক্রান্ত হয়ে মারা যান। ক্যানসারের সঙ্গে সহবাস করা মানুষদের গড় বয়সটাও সময়ের সঙ্গে সঙ্গে উল্লেখযোগ্য মাত্রায় কমছে। আগে ক্যানসার আক্রান্তদের গড় বয়স ধরা হতো ৭০ বছর। তারপর তা কমে হয়েছে ৩০-৬৯। বর্তমানে ক্যানসারের শিকার হচ্ছে বহু কমবয়সিরাও। তবে ক্যানসার কিন্তু কোনও নির্দিষ্ট কারণে হয় না। বরং এই রোগের জন্য দায়ী একাধিক কারণ। সমীক্ষা বলছে, অস্বাস্থ্যকর জীবনযাপনের কারণে ক্যানসারের ঝুঁকি অনেকাংশে বেড়ে যায়।

তবে নিয়মিত শরীরচর্চার ফলে বিভিন্ন রোগ-ব্যাধি থেকে মুক্তি পাওয়া যায়। পাশাপাশি সুস্থ জীবনযাপন করতেও ব্যায়াম করা প্রয়োজন, একথা আমাদের সকলেরই জানা। কিন্তু শুধু ব্যায়াম নয়, সঙ্গে দরকার প্রয়োজনীয় পুষ্টি উপাদান, যা সহজেই ক্যানসার প্রতিরোধ করবে। তবে ভিটামিন ডি এবং ওমেগা থ্রি-র মতো উপাদানগুলি শুধু ক্যানসার নয়, বিভিন্ন রোগপ্রতিরোধেও সহায়তা করে। নতুন এক গবেষণায় দেখা গেছে শরীরচর্চা, ভিটামিন ডি এবং ওমেগা থ্রি একসঙ্গে লক্ষণীয় মাত্রায় কমিয়ে দেয় ক্যানসারের সম্ভাবনা।

নতুন এই গবেষণা কী বলছে?

সুইৎজারল্যান্ডের ইউনিভার্সিটি অফ জুরিখ-এর গবেষকরা ওমেগা থ্রি, ভিটামিন ডি এবং শরীরচর্চা ক্যানসারের ঝুঁকি কমাতে পারে কি না, তা খুঁজে বের করার চেষ্টা করেন। তাঁদের মতে, এই উল্লিখিত উপাদানগুলি আলাদাভাবে যতটা ঝুঁকি কমায়, তার চেয়ে অনেক বেশি একসঙ্গে এই তিনটির নিয়মিত অভ্যাসে ক্যানসারের ঝুঁকি ৬১ শতাংশ কমতে পারে।

আরও পড়ুন: ডায়াবিটিস নিয়ন্ত্রণ থেকে চামড়ার জটিল রোগ নিরাময়, সস্তার জামের গুণ জানলে জুড়বেনই ডায়েটে

প্রায় তিন বছরেরও বেশি সময় ধরে সুইৎজারল্যান্ড, ফ্রান্স, জার্মানি, অস্ট্রিয়া এবং পর্তুগালের বিভিন্ন জায়গায় বিজ্ঞানীরা এই গবেষণা চালায়। তাঁরা বোঝার চেষ্টা করেন যে, প্রতিদিন ভিটামিন ডিথ্রি, ওমেগা-থ্রিএস এবং বাড়িতে শরীরচর্চার ফলে ক্যানসার আটকানো সম্ভব কিনা। এই প্রসঙ্গে উল্লেখ্য ভিটামিন ডি-থ্রি ক্যান্সার কোশের বৃদ্ধি রোধ করে। ওমেগা থ্রিএস কোশের স্বাস্থ্য বজায় রাখতে সাহায্য করে। এই গবেষণায় অংশগ্রহণকারী ২১৫৭ জনের প্রত্যেকেরই বয়স কমপক্ষে ৭০ বছর। অংশগ্রহণকারীদের ক্ষেত্রে প্রথমে পৃথকভাবে উল্লিখিত তিনটি উপাদান ব্যবহার করা হয় এবং পরবর্তীকালে তিনটি উপাদান একসঙ্গে ব্যবহার করেন গবেষকরা। বোঝার চেষ্টা করা হয়, এর মধ্যে কোন পদ্ধতিটি ক্যানসার রুখতে অতিরিক্ত কার্যকর।

যদিও নির্দিষ্ট কোনও সিদ্ধান্তে পৌঁছতে এখনও দীর্ঘ গবেষণা প্রয়োজন। তবে জুরিখের ইউনিভার্সিটি হাসপাতালের চিকিৎসক হেইকি বিশফ ফেরারি বলেছেন, "ওমেগা থ্রি, ভিটামিন ডি এবং ব্যায়াম একসঙ্গে আমাদের গবেষণায় অংশগ্রহণকারীদের মধ্যে ক্যানসার প্রতিরোধ করতে সাহায্য করেছে। যদিও এর ফলাফল নিয়ে নিশ্চিত হতে অনেকরকম তুলনা এবং আরও বেশি পর্যালোচনার প্রয়োজন রয়েছে; তবে এই তথ্য ভবিষ্যতে ক্যানসারের ঝুঁকি কমাতে অনেকখানি সাহায্য করবে।" হেইকি আরও উল্লেখ করেছেন যে, "ধূমপান, অতি-বেগুনি রশ্মি, যা যা প্রথাগতভাবে ক্যানসারের কারণ হিসেবে মনে করা হয়, আমরা তার ওপর খুব বেশি জোর দিইনি এই গবেষণায়।"

কোন ধরনের খাবারে রয়েছে এই পুষ্টি উপাদান?

ভিটামিন ডি এবং ওমেগা থ্রি শুধু ক্যানসারের ক্ষেত্রে কার্যকর, তেমন নয়। ভিটামিন ডি-র অভাবে হাড় ও হৃদযন্ত্র দুর্বল হয়ে পড়ে। এর অভাবে শিশুদের মধ্যে রিকেট আর প্রাপ্তবয়স্কদের মধ্যে অস্টিওপোরোসিসের মতো দীর্ঘস্থায়ী জটিল রোগ দেখা দিতে পারে। পাশাপাশি পেশিও দুর্বল হয়ে যায়।

অপরদিকে শরীরে ওমেগা থ্রির কারণে হৃৎপিন্ড সবল হয়।রক্তের ট্রাইগ্লিসারাইড নিয়ন্ত্রণে রাখা এবং কোলেস্টেরল কমিয়ে স্ট্রোক প্রতিরোধ করতেও ওমেগা থ্রি সাহায্য করে। তাছাড়া শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ানো, রক্তচাপ কমায় এই উপকারী ফ্যাটি অ্যাসিড। মানসিক রোগ যেমন- ডিপ্রেশন, ডিমেনশিয়া, অ্যাটেনশন ডেফিসিট হাইপারে ওমেগা থ্রি কার্যকরী। সঙ্গে তো ক্যানসার প্রতিরোধ করতে সাহায্য করেই।

তাই জানা প্রয়োজন, কী ধরনের খাবার খেলে আমাদের শরীরে এই দুই পুষ্টি উপাদানের ঘাটতি পূরণ হবে।

• দুগ্ধজাতীয় খাবার, ডিমের কুসুম, মাছ, মাংস, মাশরুম, পনির, পালং শাক, দইয়ের মতো খাবারগুলি থেকে সহজেই ভিটামিন ডি চাহিদা পূরণ করা সম্ভব।

• সয়াবিন, কড লিভার তেল, সামুদ্রিক মাছ ও তার ডিম যেমন সার্ডিন মাছ, স্যামন মাছ, আখরোট, তিসির বীজ, বাদামে রয়েছে ভরপুর ওমেগা থ্রি।

ক্যানসার থেকে সুরক্ষিত থাকতে রোজকার খাবারে রাখতে পারেন এই খাবারগুলি।

 

More Articles

;